#IStandWithFrance টুইটার ট্রেন্ডিয়ে ফ্রান্স এর পাশে ভারত।

CITY OF LOVE এর ফ্রান্সবাসী তার লড়াই লড়ছে আর সেই লড়াই এ যোগ্য নেতৃত্ব দিচ্ছে তাদের নেতা এমানুয়েল ম্যাক্রোঁর। কট্টর মৌলবাদের বিরুদ্ধে সারা বিশ্ব যা করতে পারেনি ফ্রান্স তা করে দেখাচ্ছে। ১৬ই অক্টোবর শুক্রবার দুপুরে ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে স্যামুয়েল প্যাটি নামের এক শিক্ষক কে প্রকাশ্যে গলা কেটে খুন করে এক চেচেন মৌলবাদী। তার অপরাধ ছাত্রদের ধর্মনিরপেক্ষতার শিক্ষা দিতে গিয়ে হজরত মহম্মদের একটি কার্টুন চিত্র দেখিয়েছিলেন তিনি। এর পর থেকেই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে ফ্রান্স , ইসলামিক মৌলবাদের বিরুদ্ধে জায়গায় জায়গায় প্রতিবাদ ও বিক্ষোভের আগুন জ্বলতে থাকে। ইতি মধ্যে ফ্রান্সের শহর মন্টপিলিয়ার ও টাউলুসে শার্লে এবদোর বানানো মহম্মদের বিতর্কিত কাৰ্টুন চিত্র গুলিকে প্রদর্শনের মাধ্যমে চলছে এক অভিনব প্রতিবাদ। আর ফ্রান্সবাসীর এই প্রতিবাদে তাদের পূর্ণ সমর্থন করছে তাদের নেতা এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ।

এইদিকে ইসলাম নিয়ে আরো কঠোর থেকে কঠোরতম হচ্ছে ফ্রান্স , প্রসঙ্গত, ফ্রান্সের জনসংখ্যার ৯ শতাংশ মুসলিম। ম্যাক্রো বলেন ইসলাম ধর্ম একটা সঙ্কটে রয়েছে। এই ধর্ম সভ্য সমাজের পক্ষে ক্রমশ ধ্বংসসাধক হয়ে দাঁড়াচ্ছে।ইসলাম ধর্মের দানবীয়তা কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ করতে হবে।

তাঁর এই মন্তব্যের পরেই সাড়া পড়ে গিয়েছে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে। অনেক মুসলিম দেশই ফরাসি পণ্য বয়কট করার কথা ঘোষণা করেছে।তুরস্ক, পাকিস্তান এবং বাংলাদেশে ফরাসি পণ্য বয়কটের ডাক দেওয়া হয়েছে।ম্যাক্রোঁর মানসিক চিকিৎসা দরকার বলে মন্তব্য করেন তুর্কিশ প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান। নিন্দা জানিয়ে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেন, তিনি ইচ্ছাকৃতভাবে মুসলমানদের উসকানি দেওয়ার পথ বেছে নিয়েছেন। ম্যাক্রোঁর মন্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়ে মঙ্গলবার সকালে ঢাকায় বায়তুল মোকাররম মসজিদের উত্তর গেট থেকে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের পর ফরাসি দূতাবাস ঘেরাওয়ের উদ্দেশ্যে একটি ৪০ হাজার লোকের মিছিল বের করে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সংগঠনটির নেতা–কর্মীরা।মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গিয়েছে সৌদি আরব সহ অন্যান্য মুসলিম দেশ গুলোতে। তার এই মন্ত্যবের পরেই ফ্রান্সের জাতীয় দল থেকে সরে দাঁড়াতে চলেছেন বিশ্বকাপজয়ী ফুটবলার পল পোগবা। এমনটাই জানানো হয়েছে একাধিক প্রতিবেদনে।

এতো কিছুর পরেও ফ্রান্স তার অবস্থান থেকে একটুকুও সরেনি। এখন ফরাসি সরকার মসজিদে তালা ঝোলাচ্ছে। মুসলিম সংগঠনগুলিকে বাতিল ঘোষণা করেছে। একটি হিসাব অনুযায়ী, ১২০টি বাড়িতে তল্লাশি চালানো হয়েছে। কট্টর ইসলামি মতবাদ প্রচারের অভিযোগে বেশ কিছু সংগঠন এবং সমিতি বাতিল করা হয়েছে। সন্ত্রাসে টাকা জোগানোর রাস্তা বন্ধ করার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। শিক্ষকদের জন্য বাড়তি সাহায্যের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। পোস্ট বা ভিডিয়োর ওপর নজরদারি বাড়াতে সোশ্যাল মিডিয়া কোম্পানিগুলির ওপরে চাপ তৈরি করা হচ্ছে। প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রঁর আমলে বেশ কিছু সন্ত্রাসী হামলায় ফ্রান্সে পুলিশের সদস্য-সহ কম পক্ষে ২০ জন মারা গিয়েছে। কিন্তু সরকারের কাছ থেকে এমন তৎপরতা আগে চোখে পড়েনি।

ফ্রান্স এই লড়াইয়ে একা নয় তাদের এই অবস্থান কে সমর্থন করছে যে দেশ গুলি তাদের মধ্যে ভারত ও অন্যতম। তার প্রমাণস্বরূপ
কয়েকদিন থেকেই #IStandWithFrance #IAmWithFrance #EmmanuelMacron #StandWithFrance এর মতো #হ্যাশট্যাগ গুলি ইউটিউব ও টুইটার এ ট্রেন্ড করছে।
এইদিন হিন্দু সংহতির সর্বভারতীয় সভাপতি দেবতনু ভট্টাচার্য ফ্রান্স কে সমর্থন করে একটি টুইট করেন, ইসলাম কে আটকাতে যে পদক্ষেপ ফ্রান্স নিয়েছে সেই একই পদক্ষেপ ভারত কেও দ্রুত নিতে হবে।

India must follow the same measure that @EmmanuelMacron has taken to stop Islamic imperialism @narendramodi @AmitShah
.

We_support_EmmanuelMacron. #We_Support_France.

— Debtanu Bhattacharya (@debtanu1971) October 28, 2020

বিজেপি নেতা কপিল মিশ্র টুইট করেছেন, মানবতার শত্রুদের বিরুদ্ধে সাহসী অবস্থান নিয়েছে ফ্রান্স। ভয়ঙ্কর সন্ত্রাসী হামলা হয়েছে ভারতেও।

Love and Respect from India for taking bold stand against enemies of humanity#IAmWithFrance

— Kapil Mishra (@KapilMishra) October 26, 2020

আর এক বিজেপি নেতা তেজিন্দর সিং বাগ্গা টুইট করেছেন,’বাবর, ঔরঙ্গজেব থেকে তুঘলক, ঘোরি, তৈমুর থেকে আফজল কাসব- ইসলামিক সন্ত্রাসের শিকার হয়েছে ভারতও।’

From Babur to Aurangzeb, From Tuglaq to Gori,Gazni,From Taimur toAfzal ,Kasab. India is Biggest victim of Islamic Terrorism#IamWithFrance

— Tajinder Pal Singh Bagga (@TajinderBagga) October 26, 2020

তবে একদিকে যেমন ফ্রান্স এর বিপক্ষে ইসলামিক দেশ গুলো একজোট হচ্ছে ঠিক তেমনি ফ্রান্স এর পক্ষে ইসলাম বিরোধী শক্তি গুলো ও একজোট হচ্ছে। বাকিটা শুধু সময়ের অপেক্ষা।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s