ফের ছত্তিসগড়ে মাওবাদী হামলার মুখে নিরাপত্তা বাহিনী, শহীদ নয় জন

sukmaফের ছত্তিসগড়ে মাওবাদী অধ্যুষিত এলাকায় হামলার মুখে নিরাপত্তা বাহিনী৷ টহলদারির সময় শক্তিশালী বিস্ফোরণে উড়িয়ে দেওয়া হল সিআরপিএফের অ্যান্টি -মাইন ভ্যান৷ ঘটনাস্থলেই শহিদ ৯ জওয়ান , আরও ১০ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গিয়েছে৷ আহত জওয়ানদের সুকমা থেকে রায়পুর উড়িয়ে নিয়ে যাওয়া হয়৷ ক’দিন আগেই ছত্তিসগড়ের বীজাপুরে , তেলেঙ্গানা সীমানা সংলগ্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে ১০ জন মাওবাদীকে খতম করে সিআরপি , তার পরই এই হামলা৷ এটাকে বীজাপুরের হামলার পাল্টা বলেই মনে করছেন অনেকে৷

গতকাল ১৩ই মার্চ, মঙ্গলবার ঘটনাটি ঘটে কিস্তারাম আর পালোডির মাঝামাঝি জায়গায়৷ মাওবাদীদের গড় বলে পরিচিত এই এলাকা৷ টহল দেওয়ার সময় এ দিন সকাল ৮টা নাগাদ প্রথম বার মাওবাদীদের মুখোমুখি হন সিআরপিএফের ২১২ নম্বর ব্যাটেলিয়ানের জওয়ানরা৷ সে বার জওয়ানদের তাড়া খেয়ে পালিয়ে যায় মাওবাদীরা৷ দুপুর ১২টার পর ফের হানা দেয় তারা৷ এ বার তারা টার্গেট করে মাইন -প্রতিরোধী গাড়ি  নিয়ে বেরনো টহলদারি দলকে৷ আইইডি বিস্ফোরণ ঘটিয়ে উড়িয়ে দেওয়া হয় গাড়িটি৷ ছড়িয়ে ছিটিয়ে পড়ে জওয়ানদের মৃতদেহ৷ রক্তে ভিজে যায় রুক্ষ জমি৷ হামলা করেই এলাকা ছাড়ে মাওবাদীরা৷ গত কয়েক বছরে বেশ কয়েকটি বড় বড় মাওবাদী হামলার ঘটনা ঘটেছে ছত্তিসগড়ে৷ মাস ছয়েক আগে নৃশংস ভাবে হত্যা করা হয় ২৫ জন সিআরপিএফ জওয়ানকে , গত বছর শুরুর দিকে সুকমাতেই রোড ওপেনিং পার্টির নিরাপত্তায় থাকা ১২ জন জওয়ানকে গুলি করে মারে মাওবাদীরা৷ পাল্টা অভিযানে প্রাপ্তির ঝুলিও একেবারে খালি নয়৷ গত দু’বছরে শুধুমাত্র ছত্তিসগড়েই কমপক্ষে ৩০০ মাওবাদী নিকেশ করেছে নিরাপত্তা বাহিনী৷ একাধিক ঘাঁটি ধ্বংস করা হয়েছে৷ রাজ্যের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নিজে এই তথ্য বিধানসভায় দিয়েছেন৷ গত মাসে মাওবাদী অধ্যুষিত অবুঝমাড়ের জঙ্গলে স্থায়ী ক্যাম্প তৈরি করেছে সিআরপিএফ৷ সাম্প্রতিক অতীতে যা প্রথম৷ কিন্তু  উদ্যোগে ঘাটতি না থাকলেও , ফল এখনও সে ভাবে চোখে পড়েনি৷ মাওবাদীদের হামলা কিংবা জওয়ানদের শহিদ হওয়ার ধারাবাহিকতায় কোনও ছেদ পড়েনি৷ ঘটনায় উদ্বেগপ্রকাশ করে জওয়ানদের সাহসের প্রশংসা করেছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং৷ বাহিনী জানিয়েছে , এলাকায় আরও ব্যাটেলিয়ন পাঠানো হয়েছে৷ মাওবাদীদের শীর্ষ স্থানীয় নেতা হিডমা এই হামলার নেপথ্যে ছিল বলে প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে৷ হিডমার নামে ২৫ লাখ টাকার পুরস্কার মূল্য আগে থেকে ধার্য করে রেখেছে পুলিশ৷

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s