হায়দরাবাদ বিস্ফোরণে ইয়াসিন ভাটকল সহ পাঁচ জঙ্গির ফাঁসির নির্দেশ

yasin-bhatkal২০১৩-র ২১ ফেব্রুয়ারি হায়দরাবাদের দিলসুখনগরের বিস্ফোরণে ১৮ জনের মৃত্যু হয়। সেই মামলায় সম্প্রতি, ইন্ডিয়ান মুজাহিদিন কো- ফাউন্ডার ইয়াসিন ভাটকল সহ পাঁচ জঙ্গিকে দোষী সাব্যস্ত করে গোয়েন্দা সংস্থা এনআইএ।

২০১৩ সালে ভয়াবহ বিস্ফোরণ ঘটে অন্ধ্র প্রদেশের রাজধানী শহর হায়দরাবাদে। তখনও পৃথক তেলেঙ্গানা রাজ্য গঠিত হয়নি। চার মিনারের শহরের ওই বিস্ফোরণে ১৮ জন নিরীহ মানুষ প্রাণ হারিয়েছিলেন। ২০১৩ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি ঘটা সেই বিস্ফোরণে মৃতদের মধ্যে একজন গর্ভবতী মহিলাও ছিলেন।উক্ত ঘটনায় জখম হয়েছিলেন ১৩১ জন। ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের ঘটানো ওই বিস্ফোরণের তদন্ত করছিল জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা এনআইএ। ইয়াসিন ভাটকল ছাড়াও যাদের নাম রয়েছে তারা হল জিয়াউল রহমান, আসাদুল্লা আখতার, তহসিন আখতার, আইজাজ শেখ ও রিয়াজ ভাটকল।

গোয়েন্দা সূত্রে জানা যায়, রিয়াজ ভাটকলই এই বিস্ফোরণের মাস্টারমাইন্ড। রিয়াজের কাছে রয়েছে একটি পাকিস্তানি পাসপোর্ট। তদন্তে নেমে এনআইএ গোয়েন্দারা দেখেছেন তাকে পাকড়াও করা মোটেই সহজ নয়। গোয়েন্দা রিপোর্ট অনুযায়ী, দিলসুখনগরে বিস্ফোরণ ঘটাতে ১.২৫ লক্ষ টাকা হাওয়ালার মাধ্যমে পাঠিয়েছিল রিয়াজ একাই। বিস্ফোরণের পর সে ৭০,০০০ টাকা পাঠাব সৌদি আরবে তার সাঙ্গপাঙ্গদের। ইয়াসিন ভাটকলের সঙ্গে সবসময় যোগাযোগ রাখত রিয়াজ। হায়দরাবাদে বিস্ফোরণ ঘটাতে আসাদুল্লা, তহসিন আখতার ও জিয়া-উর-রহমনাকে ইয়াসিনের সঙ্গে ভিড়িয়েছিল রিয়াজ। ইয়াহু ম্যাসেঞ্জারের মাধ্যমে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখেছিল রিয়াজ। বিস্ফোরক তৈরির জন্য ৫০টি ডিটোনেটর জোগড়ও করে দিয়েছিল সে।

Advertisements