পাকিস্তানের মাটি থেকে ভারতীয় সেনাবাহিনীর উপরে হামলা করার ঘোষণা করলো তেহরিক-ই-তালিবান

পাকিস্তানের কুখ্যাত জঙ্গিগোষ্ঠী এই তেহরিক-ই-তালিবানের নজর এখন কাশ্মীরে৷ যদিও এর আগে তারা জানিয়েছিল, কাশ্মীর নিয়ে তারা চিন্তিত নয়৷ তাদের মূল লড়াই পাকিস্তানের প্রশাসন ও সেনার বিরুদ্ধে৷ কিন্তু রাতারাতি তা বদলে গেল উরি হামলার পরেই৷ কাশ্মীরের বিরুদ্ধে এই জেহাদ ঘোষণা করার নেপথ্যে কী তবে লুকিয়ে রয়েছে অন্য রাজনৈতিক চাল?

রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা অনেকেই মনে করছেন, উরি হামলার পরে বেশিরভাগ দেশই পাকিস্তানকে জঙ্গি রাষ্ট্র হিসেবে চিহ্নিত করতে চায়৷ এই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে পাকিস্তান প্রশাসনের কপালে ভাঁজ পড়েছে৷ আর সেই সুযোগের সদ্ব্যবহার করেই প্রশাসনের নেক নজরে আসতে চাইছে তেহরিক-ই-তালিবান৷ এমনকি জেহাদ ঘোষণা করলে আফগান তালিবান গোষ্ঠীর সমর্থনও পাবে কাশ্মীরের বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য৷ এবং পাকিস্তানের অন্দরেও জেহাদের বীজ বোপণ করতে সুবিধাই হবে তাদের৷

তবে এই জেহাদ ঘোষণা এবং আন্তর্জাতিক স্তরে পাকিস্তান ও ভারতের সাম্প্রতিক পরিস্থিতি নিয়ে পাক প্রশাসনের অবস্থান, কী শুধুই কাকতালীয় নাকি এই ঘটনাই প্রকাশ্যে এনে দিল পাকিস্তান ও জঙ্গিগোষ্ঠীর সমঝোতা৷

Advertisements